আজ ৮ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২৪শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

তালার জালালপুর ইউপিতে স্বতন্ত্র প্রার্থীর ২৫ কর্মী নির্যাতনের শিকার।

জামাল উদ্দীন ঃ

তালার ১১ ইউপি-র নির্বাচনে সকলের নজর জালালপুরে।নির্বাচনের বাকি আর মাত্র ৩ দিন।সে কারণে চরম নিরাপত্তাহীনতায় উদ্বিগ্ন জালালপুরে মানুষ। নির্বচনের তফসিল ঘোষনার পর থেকে এ ইউপিতে পেশিশক্তি ব্যবহারে ভীতসন্ত্রস্ত ভোটাররা। এ পর্যন্ত স্বতন্ত্র প্রার্থীর কর্মী সমার্থকদের মধ্যে কমপক্ষে ২৫ জন নির্যাতনের শিকার হয়েছেন প্রতিপক্ষের হাতে। এ ইউপিতে বিএনপি নেতা টানা ২ বারের নির্বাচিত চেয়ারম্যান এম মফিদুল হক লিটু সাধারণ মানুষের সেবায় নিজেকে উজাড় করে দেওয়ায় তৃতীয়বারের জন্য নির্বাচিত করতে দলমত নির্বিশেষ গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে।অনুসন্ধানে সাধারণ ভোটারদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, এ ইউপির নৌকা প্রতীকের প্রার্থী রবিউল ইসলাম (মুক্তি) বিগত সমায়েও মফিদুল হক লিটুর সাথে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে পরাজিত হয়েছেন।সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনুষ্টিত হলে এবারও তাঁর ব্যতিক্রম হবে না।সে কারণে দলীয় ক্ষমতা কে পুঁজি করে নৌকার প্রার্থীর সামর্থকদের হামলার ঘটনায় নির্বাচন কমিশনের মাধ্যমে আইনি প্রতিকার পেতে লিখিত অভিযোগ দায়ের হলেও কোন প্রতিকার হয়নি।তাই এ নির্বাচন অবাদ ও সুষ্ঠ না হলে চরম রক্তারক্তির ঘটনাও ঘটতে পারে।এ দিকে নির্বাচন কে সামনে রেখে বহিরাগতদের পদচারণ দারুণভাবে চিন্তিত শান্তীপ্রিয় জালারপুর মানুষ।এ বিষয়ে তালা থানার ওসি মেহেদী রাসেল বিগত নির্যাতনের ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন,যখন যেখানে এমন ঘটনা ঘটেছে সেখানেই পুলিশ অবস্থান নিয়ে আইন শৃংখলা উপরিস্থিতি নিয়োন্ত্রনে রেখেছেন।নির্বাচন প্রসঙ্গ বলেন, অবদ সুষ্ট নির্বাচন পরিচালনায় পুলিশ সম্পূর্ন ভুমিকা রাখবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এই বিভাগের আরও খবর